মেইন ম্যেনু

অপরাধী ধরতে উড়ন্ত বাইক!

সামনেই অপরাধীদের গাড়ি। পাল্লা দিতে পারছে না বাইকটা। হঠাৎ গাড়ির উপরে উঠে পড়ল উড়ন্ত বাইকটা। গাড়িকে ডিঙিয়ে সামনে এসে পড়ল। না, হলিউডের কোনও ছবির দৃশ্য নয়, একেবারে বাস্তব।

দুবাইয়ের পুলিশ এই হোভার মোটরবাইক ব্যবহার করছে অপরাধীদের ধরতে। ‘জাইটেক্স টেকনোলজি সপ্তাহ’ শীর্ষক সম্মেলনে এই হোভারবাইক প্রকাশ্যে আসে। হোভারবাইক জরুরি পরিস্থিতিতে পুলিশ বাহিনী ব্যবহার করতে পারবে এবং রাস্তার গতিপ্রকৃতি বা অপরাধীদের অনুসরণ করতে প্রয়োজনে উড়েও যেতে পারবে।

এই হোভারবাইক অনেকটা স্পিডার বাইক ধাঁচের, যা স্কাউট ট্রুপাররা ব্যবহার করেন। দুবাইয়ের রাস্তায় চক্কর খাবে এটি।

রাশিয়া হোভার সার্ফের তৈরি এই ক্র্যাফট পুরোপুরি বৈদ্যুতিক এবং ৬০০ পাউন্ডের উপর ওজন নিতে সক্ষম। এই হোভারবাইক প্রতি চার্জে উড়ন্ত অবস্থায় ২৫ মিনিট চালানো যাবে। স্করপিয়ন নামের এই হোভারবাইক নানা জরুরি পরিস্থিতিতে টানা সাড়ে ছয় কিমি পর্যন্ত উড়তে পারে। প্রায় ৫ মিটার পর্যন্ত উচ্চতায় উড়তে পারবে এটি। ৯৭ কিমি প্রতি ঘণ্টা এর গতিবেগ।

হোভারসার্ফের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আলেক্সান্ডার আতামানভ জানান, সংস্থা দুবাই পুলিশের সঙ্গে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে। এর স্করপিয়ন মডেলের দাম এক কোটি টাকা। এছাড়াও অন্য একটি সংস্করণ কিনেছে দুবাই পুলিশ। এতে থাকবে নতুন ব্যাটারি ও কার্বন ফাইবার ফ্রেম। এর ওজন প্রায় ১১৪ কিলোগ্রাম।



মন্তব্য চালু নেই