মেইন ম্যেনু

আইফোনের জন্য কুমারিত্ব নিলামে তুলে নির্মম তামাশার শিকার তরুণী

সদ্য বাজারে আসা আলোচিত এন্ড্রয়েড ফোন আইফোন-৮ পেতে নিজের কুমারিত্ব নিলামে তুলে দেয় ১৭ বছর বয়সী এক তরুণী। কিন্তু এর ফলে যে অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে যায় সেটা তার জন্য বেশ ভয়াবহ ছিল।

ব্রিটিশ পত্রিকা মিররের খবরে বলা হয়, কয়েক দিন আগে একটি অনলাইন প্লাটফর্মে নিজের কুমারীত্ব নিলামে তুলেন শিয়াও চেন নামে ১৭ বছর বয়সী সেই তরুণী। নগদ অর্থে কুমারীত্বের বিনিময়ে ২,৩০০ পাউন্ড দাবি করেন।

কিন্তু তার এই পোস্টটি একজন প্রাংকস্টারের নজরে পড়ে। নানা নামের ২১ বছর বয়সী প্রাংকস্টার তরুণীর একটি সাক্ষাতকারের পরিকল্পনা করেন।

প্রথমে একটি চায়ের ক্যাফেতে কেন কুমারীত্ব নিলামে তুললো তার স্বীকারোক্তি নেয়। শিয়াও চেন নামে ওই তরুণী জানায় তার এক বান্ধবী এক ধনী পুরুষের সঙ্গে সময় কাটিয়ে ‘সহজেই অনেক অর্থ’ পায়।

শিয়াও আরও জানায় তার অনেক বন্ধু-বান্ধবীই আইফোন-৮ কিনে ফেলেছে। তার একটা দরকার ছিল। কিন্তু বিশাল অংকের অর্থ না থাকায় কুমারীত্ব নিলামে তোলার পরিকল্পনা আঁটে।

কিন্তু নানা নামে সেই প্রাংকস্টার একটি নকল গণধর্ষণের চিত্রনাট্য বানায়। প্রথমে একটি হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয় সেই তরুণীকে। হাতে একটি আইফোনও ধরিয়ে দেয়। তারপর পাশের রুম থেকে বেশ কয়েকজন যুবককে ডেকে আনা হয়। সেই তরুণী মনে করছিল গণধর্ষণের শিকার হতে যাচ্ছে সে। হাত পা ছড়াছড়ি ও চিৎকার চেচামেচি করছিল শিয়াও চেন। তবে কিছুক্ষণ পর প্রাংকস্টারের সহযোগীরা থেমে যায়। তারপর চেনকে বুঝানোর চেষ্টা করে মাত্র একটা আইফোনের জন্য এমন ঝুঁকি নেওয়া ঠিক হয়নি। বাস্তবে সে এমন পরিস্থিতিতে পড়তে পারতো।

শিয়াও চেন এই মিশ্র অভিজ্ঞতায় ভড়কে গিয়েছে সেটা বলাই বাহুল্য।






মন্তব্য চালু নেই