মেইন ম্যেনু

এবার রাম রহিমের আস্তানায় ৬০০ কঙ্কাল!

ভারতের বিতকির্ত ধর্মগুরু রাম রহিম। দুই নারী শিষ্যাকে ধর্ষণের দায়ে বর্তমানে হরিয়ানার কারাগারে ২০ বছরের কারাদণ্ড ভোগ করছেন তিনি।

আর ধর্ষণে ঘটনার জেরে প্রতিদিনই নতুন নতুন তথ্য বের হয়ে আসছে তার সম্পর্কে। উন্মোচিত হচ্ছে তার আস্তানার অন্ধকার অধ্যায়।
এবারে রাম রহিমের আস্তানার উচ্চ পদস্থ দুই কর্মকর্তা তদন্তকারীদের জানিয়েছেন, তার আস্তানায় মাটি চাপা অবস্থায় রয়েছে প্রায় ৬০০ কঙ্কাল। আর তা গোপন করতে উপরে লাগানো হছে গাছের চারা।

২০ সেপ্টেম্বর বুধবার ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডে জানায়, রাম রহিমের আস্তানার ব্যবস্থাপক বিপাসনা ও সাবেক ভাইস-প্রেসিডেন্ট পি আর নাইনকে জিজ্ঞাসাবাদে এসব তথ্য পেয়েছেন বিশেষ তদন্ত দল এসআইটি।

তারা তদন্তকারীদের জানিয়েছেন, এক জার্মান বিজ্ঞানীর পরামর্শে ওই কঙ্কালগুলোর উপর গাছের চারা রোপণ করা হয়। এসব দাবির পক্ষে যথেষ্ট তথ্য প্রমাণও তারা হাজির করেছে বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যমটি।

এদিকে আস্তানার আরেক সাবেক নারী ভক্ত অভিযোগ করেন, ডেরায় পাঠানোর পর ১২ বছর ধরে তার সন্তানকে খুঁজে পাচ্ছেন না তিনি। পানিপথের বাসিন্দা ওই নারীর দাবি, ডেরার সেবার জন্য সন্তান পাঠাতে পত্রিকায় রাম রহিম বিজ্ঞাপন দেওয়ার পর দুই মাস বয়সী সন্তানকে তিনি ডেরায় রেখে আসেন। তারপর আর কোনো খোঁজ পাননি তিনি।

দুই নারী ভক্তকে ধর্ষণের দায়ে বিশেষ আদালতে বিচারের পর ২০ বছরের কারাদণ্ড ভোগ করতে রোহতক কারাগারে রয়েছেন রাম রহিম। রায় ঘোষণার পর হরিয়ানা জুড়ে তার সমর্থকদের বিক্ষোভে ও সহিংসতায় প্রাণ হারান কমপক্ষে ৩৮ জন। রাম রহিমের বিরুদ্ধে আরও অভিযোগ তদন্ত করতে হরিয়ানার সিরসায় তার ডেরায় নিয়মিত অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।






মন্তব্য চালু নেই