মেইন ম্যেনু

এসএসসিতে জিপিএ- ৩.৬১ পেয়েছে দীঘি

এসএসসি পাশ করেছেন। তবে কাংখিত ফলাফল অর্জন করতে না পারায় সদ্য এসএসপি পাশ করা বড় পর্দার সেই ছোট্ট নায়িকা প্রার্থনা ফারদিন দীঘি মুখ ভার করে আছেন। সোমবার এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ হলে তিনি এতে ‘এ মাইনাস’ পেয়ে উত্তীর্ণ হন বলে জানান তার বাবা সুব্রত বড়ুয়া।

দেখতে দেখতে ছোট্ট সেই দীঘি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের গন্ডি পেরিয়ে এসেছেন উচ্চ মাধ্যমিকের গন্ডিতে। ‘বাবা জানো, আমাদের একটা ময়না পাখি আছে না? সে আজকে আমার নাম ধরে ডেকেছে,…।’ একটি মোবাইল অপারেটরের বিজ্ঞাপন চিত্রেই যেন কল্পনা করা যায় দীঘিকে। কিন্তু সেই দীঘিই কিনা এখন চিত্র নায়িকা হয়েছেন। পেয়েছেন দর্শক প্রিয়তা।

দীঘির বাবা সুব্রত জানান, দীঘি স্ট্যামফোর্ড স্কুল ও কলেজ থেকে জিপিএ-৩.৬১ পেয়েছেন। ফলাফল আশানুরূপ না হলেও এতেই তারা খুশি। দীঘি এ ফলাফলে খুশি হতে পারেননি, মন খারাপ করে বসে আছেন বলেও জানান তিনি।

অভিনেতা সুব্রত বড়ুয়া ও প্রয়াত চলচ্চিত্র অভিনেত্রী দোয়েল দম্পতির একমাত্র মেয়ে দীঘি। চলচ্চিত্রে অভিনয়ের আগে একটি মোবাইল অপারেটরের বিজ্ঞাপনে অভিনয় করে ব্যাপক সাড়া ফেলেছিলেন দীঘি। এরপর কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘কাবুলিওয়ালা’ তার অভিনীত প্রথম চলচ্চিত্র। প্রথম চলচ্চিত্রে অভিনয় করেই ২০০৬ সালে ‘শ্রেষ্ঠ শিশুশিল্পী’ হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন তিনি। এরপর দাদীমা, চাচ্চু, বাবা আমার বাবা, ১ টাকার বউ ও অবুঝ শিশুর মতো চলচ্চিত্রে অভিনয় করে দর্শক মনে জায়গা করে নেন।



মন্তব্য চালু নেই