মেইন ম্যেনু

চলন্ত অটোরিকশায় নারীকে পুরুষাঙ্গ দেখিয়ে যুবক আটক

বরিশাল নগরীতে চলন্ত অটোরিকশায় পুরুষাঙ্গ দেখিয়ে নারী যাত্রীকে যৌন হয়রানির দায়ে আটক মো. মাসুম বিল্লাহ (২৮) নামের এক যুবকের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা করার নির্দেশ দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টার দিকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ঊর্মি ভৌমিক এ নির্দেশ দেন।

আটক মাসুম বিল্লাহ নগরীর কাশিপুর ইউনিয়নের গনপাড়া এলাকার মো. মোসলেমের ছেলে এবং কাশিপুর বাজারের ওয়ালটন শো-রুমে চাকরি করেন।

বরিশাল বিমানবন্দর থানা পুলিশের (ওসি) এসএম মাহবুব উল আলম বলেন, বুধবার বিকেলে নগরীর জেলখানা মোড় থেকে অটোরিকশাযোগে এক নারী নথুল্লাবাদের উদ্দেশ্যে রওনা হন। ওই অটোরিকশার যাত্রী ছিলেন মাসুম বিল্লাহও। একপর্যায়ে মাসুম বিল্লাহ প্যান্টের চেইন খুলে নারীকে পুরুষাঙ্গ দেখান। ওই নারী বিষয়টি দেখেও না দেখার ভান করেন। এরপরও মাসুম প্যান্টের চেইন খুলে রাখলে ওই নারী কৌশলে স্মার্টফোনে ধারণ করে নতুন বাজারে নেমে যান।

এরপর বাসায় গিয়ে বিষয়টি তার পরিবারের সদস্যদের জানালে তারা ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছেড়ে দেন। ফেসবুকে পোস্ট করার পর ওই যুবককে ধিক্কার ও গ্রেফতারের দাবি জানিয়ে অনেকে মন্তব্য করেন।

বিষয়টি পুলিশ কমিশনার মো. শাহাবুদ্দিন খানের নজরে আসলে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের সাইবার ক্রাইম ও মিডিয়া সেলের সদস্যদের ওই যুবককে খুঁজে বের করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দেন।

বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে নগরীর কাশিপুর বাজারের মনোয়ারা মঞ্জিল থেকে আটক করা হয় মাসুম বিল্লাহকে। রাতেই সাইবার ক্রাইম ও মিডিয়া সেলের সদস্যরা মাসুম বিল্লাহকে বিমানবন্দর থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।

ওসি এসএম মাহবুব উল আলম আরও বলেন, বৃহস্পতিবার বিকেলে মাসুম বিল্লাহকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে সোপর্দ করা হয়। এ সময় সাক্ষ্য দিতে ভ্রাম্যমাণ আদালতে উপস্থিত ছিলেন যৌন হয়রানির শিকার ওই নারী। সব কিছু শুনে ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ঊর্মি ভৌমিক অভিযুক্ত মাসুম বিল্লাহর বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা করার নির্দেশ দেন।



মন্তব্য চালু নেই