মেইন ম্যেনু

ডেঙ্গু রোধে লম্বা জামা-পায়জামা পরার পরামর্শ মেয়রের

এডিস মশার কামড় থেকে রক্ষা পেতে মসজিদের ইমামসহ সবাইকে লম্বা জামা-পায়জামা ও মোজা পরার পরামর্শ দিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন।

রোববার (৪ আগস্ট) দুপুরে নগর ভবনে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। কোরবানির বর্জ্য সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনা ও ডেঙ্গু প্রতিরোধের লক্ষ্যে মসজিদের খতিব ও ইমামদের সঙ্গে মতবিনিময় এবং অ্যারোসেল স্প্রে বিতরণ সভার আয়োজন করে ডিএসসিসি।

মেয়র সাঈদ খোকন বলেন, আপনারা যারা লম্বা প্যান্ট, পায়জামা পরেন, পাজামার সঙ্গে মোজা পরলে আমরা কিন্তু নিরাপদ থাকতে পারি। বাসায় যারা থাকবেন, তাদের লম্বা জামা পরতে বলবেন। এই ছোট ছোট সচেতনতা আমাদের উপকার করবে এবং ডেঙ্গু মসিবত থেকে রক্ষা করবে ইনশাল্লাহ।’

ডেঙ্গু মোকাবিলায় নগর কর্তৃপক্ষ তার সর্বশক্তি দিয়ে মাঠে আছে জানিয়ে দক্ষিণের মেয়র বলেন, ‘আমাদের জনগণ এক মাস আগেও সচেতন ও সতর্ক ছিল না, তবে এখন ডেঙ্গু নিয়ে সবাই মোটামুটি সচেতন। আপনাদের সচেতনতা ও আমাদের প্রচেষ্টা এই দুইয়ের সমন্বিত উদ্যোগে আমরা ডেঙ্গুকে মোকাবিলা করব।’

ডেঙ্গু মোকাবিলায় সিটি করপোরেশনের নেয়া উদ্যোগ তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘প্রতিদিন কমপক্ষে ৩০টি বাসায় আমাদের ইনসপেকশন টিম যাচ্ছে, এডিস মশার লার্ভা নষ্ট করছে।

ইতোমধ্যে ১৫ হাজার বাসা ছাড়িয়ে গেছে। কাল পরশু থেকে প্রতিদিন কমপক্ষে ৬০টি বাসা প্রতিটি ওয়ার্ডে ৩৪৮০টি বাসা ইনসপেকশন করে এডিস মশার লার্ভা নষ্ট করা হবে। আমরা আমাদের জনবল বৃদ্ধি করছি।’

অত্যন্ত দ্রুত সময়ের মধ্যে নতুন ডেঙ্গু আক্রান্তদের সংখ্যা কমে আসবে বলেও জানান তিনি।

সাঈদ খোকন বলেন, আল্লাহ তায়ালা মাফ করলে দ্রুত ডেঙ্গুমুক্ত শহর নিশ্চিত করতে পারবো। আগামী সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহের মধ্যে ঢাকা দক্ষিণ সিটিকে ডেঙ্গুমুক্ত করতে পারবো ইনশাল্লাহ। এ কাজে ইমামরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারেন।

তারা নিজ এলাকায় প্রতিটি মসজিদে ডেঙ্গু থেকে মুক্তির লক্ষ্যে দোয়া পাঠ করবেন। যেন এ শহর দ্রুত ডেঙ্গুমুক্ত হয়। কারণ আল্লাহ ধৈর্যশীল ও নামাজিদের পছন্দ করেন। আমরা ধৈর্য ধরবো ও নামাজের সঙ্গে আল্লাহর দরবারে সাহায্য প্রার্থনা করবো। নিশ্চয় তিনি আমাদের মাফ করবেন।



মন্তব্য চালু নেই