মেইন ম্যেনু

নামিদামি ব্রান্ডের ৫২টি পণ্য বিক্রি বন্ধের নির্দেশ

বাজার থেকে নামিদামি ব্রান্ডের নিম্নমানের ৫২টি পণ্য প্রত্যাহারের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। ভেজাল প্রতিরোধে সরকারি সংস্থাগুলো ব্যর্থ বলেও মনে করেন উচ্চ আদালত। আদালত বলেছেন, মাদকের মতো সরকারের উচিৎ ভেজাল প্রতিরোধকে এক নম্বর অগ্রাধিকার দেয়া।

রমজান মাস এলেই পণ্যে ভেজাল নিয়ে নড়েচড়ে বসে প্রশাসন। কিন্তু এ বিষয়ে বাকি ১১ মাস অনেকটায় নিশ্চুপ থাকে সরকারি তদারকি সংস্থাগুলো। সরকারি সংস্থাগুলোর এমন আচরণে চটেছেন উচ্চ আদালত।

রোববার (১২ মে) দুপুরে নামিদামি ব্রান্ডের নিম্নমানের ৫২টি পণ্য প্রত্যাহারের নির্দেশ দেন আদালত।

আদালত বলেছেন, মাদকের মতো সরকারের উচিত ভেজালের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করা।

ডেপুটি অ্যার্টনি জেনারেল বলেন, আদালত মনে করেন ভেজালের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করা উচিত। যেমন করা হয়েছে মাদকের বিরুদ্ধে। যেহেতু এটা অ্যাডমিনিস্ট্রিটিভ ফাংশন এখানে কোর্ট কিছু করতে পারে না। আশা করি, সরকার এ বিষয়ে পদক্ষেপ নিবে।

এদিন মানহীন ঘোষণার পরও ৫২টি পণ্য বাজার থেকে সরানোর ব্যবস্থা না করায় অসন্তোষ প্রকাশ করেন আদালত। অবিলম্বে এসব পণ্য বাজার থেকে প্রত্যাহারের নির্দেশ দেয়া হয়।

ব্যারিস্টার শিহাব উদ্দিন খান বলেন, ৫২টি ভেজাল পণ্য বাজার থেকে সরিয়ে ফেলতে এবং বিক্রি বন্ধ করতে আদালত নির্দেশ দিয়েছেন।

বিএসটিআই বলছে, আদালতের আদেশ অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

এদিকে, ওয়াসার পানি নিরাপদ করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ারও আদেশ দিয়েছেন উচ্চ আদালত।



মন্তব্য চালু নেই