মেইন ম্যেনু

নিজের গাড়ি রোগীকে দিয়ে ইজিবাইক চালিয়ে দফতরে মেয়র

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ইজিবাইক চালাচ্ছেন। এমন একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। মঙ্গলবার দুপুরের পর নগরীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে ইজিবাইক চালিয়ে নগর ভবনে ফেরেন মেয়র।

স্থানীয় সূত্র জানায়, মঙ্গলবার দুপুরে নগরীর মহিষবাথান গোরস্থানে বীর মুক্তিযোদ্ধা সাইদুর রহমানের জানাজায় অংশ নেন মেয়র লিটন ও পরিষদের কয়েক সদস্য। সেখানে গিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়া এক ব্যক্তিকে নিয়ে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে যায় মেয়রের গাড়ি। ফলে বাধ্য হয়ে ইজিবাইকে চেপে নগর ভবনে ফেরেন মেয়র। তবে ইজিবাইকে উঠে তিনি চালককে পাঠিয়ে দেন যাত্রীর আসনে।

রাজশাহী নগরীকে বদলে দেয়া এ মেয়র এর আগে ঝাড়ু হাতে নগর পরিচ্ছন্নতায় নেমেছিলেন। পরিচ্ছন্ন ও দুষণমুক্ত নগর গড়তে ডাস্টবিন হাতে ঘুরেছেন পথে পথে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও এসব কর্মকাণ্ড নিয়ে বেশ সরব মেয়র লিটন।

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য লিটন নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি পদে রয়েছেন। বিএনপির প্রার্থী সাবেক মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলকে বিপুল ভোটে পরাজিত করে দ্বিতীয়বারের মতো মেয়র নির্বাচিত হন লিটন।

মঙ্গলবার দুপুর ২টা ২৯ মিনিটে সিটি কর্পোরেশনের ১৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমন ফেসবুকে মেয়র লিটনের ইজিবাইক চালানোর ভিডিও ছড়িয়ে দেন।

ভিডিওতে দেখা যায়, নগরীর রাস্তা দিয়ে লিটন অটোরিকশা চালিয়ে যাচ্ছেন। এ সময় মেয়রের পাশে বসেছিলেন কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমন। এ পর্যন্ত ভিডিওটি দেখা হয়েছে ২২ হাজারের বেশি বার। আর শেয়ার করেছেন ৫ শতাধিক ফেসবুক ব্যবহারকারী।

দুই মিনিটের ভিডিওতে দেখা যায়, মাথায় সাদা টুপি, চোখে চশমা, গায়ে কমলা রঙের পাঞ্জাবি পরে মেয়র লিটন ইজিবাইকের চালকের আসনে। ওই সময় তার ইজিবাইকে যাত্রী ছিলেন, রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, ১৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমন, ২১ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর নিযামুল আযীম ও ইজিবাইক চালক। চালকের আসনে থেকে মেয়র রাস্তার দুই পাশের ফুটপাতে নজর দিচ্ছিলেন। উৎসুক জনতার দিকে তাকিয়ে হাসেন মেয়র।

ভিডিওতে রাসিক প্যানেল মেয়র সরিফুল ইসলাম বাবু বলেন, প্রিয় নগরবাসী এ মুহূর্তে আমরা অটোতে আছি; আর এই অটোর চালাক আমাদের রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। তিনি নিজে অটো চালিয়ে আজকে রাজশাহী শহরের জনজীবনের নানা দুর্ভোগ দেখছেন।

সরিফুল ইসলাম বাবু আরও বলেন, রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনকে আধুনিক বসবাসযোগ্য মহানগরী গড়তে চাইলে মেয়রের একার পক্ষে সম্ভব নয়। আপনারা তাকে যেভাবে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন একইভাবে তার আগামী দিনের সকল জনকল্যাণমূলক কাজে সক্রিয় অংশগ্রহণ করবেন।

মেয়র ইজিবাইক চালিয়ে নগর ভবনে পৌঁছালে আনন্দমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়। ইজিবাইক থেকে নেমে সবাইকে ধন্যবাদ দেন মেয়র লিটন।



মন্তব্য চালু নেই