মেইন ম্যেনু

বিয়ে ভেঙে যেতেই বিয়ের পোশাকে ‘ডিভোর্স পার্টি’ কনের!

বার্থ ডে পার্টি কিংবা অ্যানিভার্সারি পার্টির কথা আমরা শুনেছি। তবে এখনকার নতুন ট্রেন্ড ব্রেক আপ পার্টি। সেটির সঙ্গেও অভ্যস্ত হয়ে উঠছে বর্তমান প্রজন্ম। কিন্তু এবার সামনে এল ডিভোর্স পার্টির কথা। শুনতে অবাক লাগলেও এ কথা সত্য।

বিয়ে কিংবা প্রেম ভেঙে গেলে দেবদাসের উদাহরণ আমাদের চোখের সামনে রয়েছে অনেক। সিনেমাতে গুটিকয়েক সেই নিদর্শন আমরা পেয়েছি। কিন্তু বিয়ে ভেঙে গেলে ডিভোর্স পার্টির কথাটি শুনলে চমকানোর মতই ঘটনা হবে সেটি। কানাডার এক নারী এমনই এক অদ্ভুত কাণ্ডটি ঘটিয়ে ফেলেছেন।

কানাডার সাসকাচেওয়ানের বাসিন্দা নিকোল নিসনা। বয়স মাত্র ৩৬ বছর। তেরো বছর পর আচমকাই তার স্বামী তাকে মেইল করে ডিভোর্স দিয়ে দেন। সেই সময় একটুও ভেঙে পড়েননি নিকোল। বরং কিভাবে এই দিনটি সেলিব্রেট করবেন সেই নিয়েই ভাবনাচিন্তা শুরু করে দেন তিনি। এরপরই তিনি আমন্ত্রন জানান সমস্ত বন্ধু বান্ধবদের।

আর সেই পার্টির ড্রেসকোড ছিল বিয়ের পোশাক। বিয়ের পোশাকেই সবাই এসে পৌঁছালেন পার্টিতে। নিকোল নিজেও পরে নিলেন বিয়ের সাদা রংয়ের গাউনটি। আর বন্ধু বান্ধবদেরকে নিয়ে চুটিয়ে মজা করলেন সেদিনটা। হালকা নেশায় বুদ হয়ে বললেন, বিয়ের পর জীবনটা আবার নতুন করে উপভোগ করতে এমন একটি ডিভোর্স পার্টি সকলের করা উচিত।



মন্তব্য চালু নেই