মেইন ম্যেনু

মদনে এসএসসি পরীক্ষার্থী নিখোঁজ

প্রতিনিধি মদন (নেত্রকোনা) : নিখোঁজ হওয়ার ৮ দিন পরেও এসএসসি পরীক্ষার্থী স্কুল ছাত্রীর সন্ধান না মেলায় মঙ্গলবার রাতে মদন থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন মেয়েটির মা কমলা আক্তার। অভিযোগ করে একই গ্রামের বেছু মিয়ার উল্টো হুমকির মুখে পড়েছেন বাদীর পরিবার।

মেয়েটির মা জানান, বালালী বাঘমারা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে তার মেয়ে এ বছর এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়ার কথা ছিল। স্কুলে আসা যাওয়ার সময় একই গ্রামের বেছু মিয়ার ছেলে ওমর সানি তাকে প্রায়ই যৌন হয়রানি করত। এ ব্যাপারে তার অভিভাবকের কাছে নালিশ দেয়া হয়। গত ৯ জানুয়ারি ২০১৮ রাতে উপজেলার বালালী গ্রামের নিজ বসত ঘর থেকে তার এসএসসি পরীক্ষার্থী মেয়ে নিখোঁজ হয়ে যায়। অনেক খোঁজাখুজি করার পর বেছু মিয়া তার মেয়েকে ফিরিয়ে দেবে বলে আশ্বাস দিলেও তাকে না দেওয়ায় মঙ্গলবার রাতে মদন থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছি। এ ঘটনার পর বেছু মিয়া উল্টো আমাকে দেখে নেবে বলে নানা হুমকি দিচ্ছে। আমরা বর্তমানে জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছি।

বেছু মিয়া জানান, ৫দিন আগে আমার ছেলে ওমর সানির সাথে হাদিস উদ্দিনের মেয়ে দীপা আক্তারের কোর্ট ম্যারিজ ঢাকার কোর্টে হয়েছে। তবে অচিরেই মেয়েকে আমার বাড়িতে নিয়ে আসব।

বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক মোঃ আমিনুল ইসলাম জানান, মেয়েটি গত পরীক্ষায় এক বিষয়ে ফেল করায় এবার ওই বিষয়ে ফরম ফিলাপ করেছে। তবে নিখোঁজের বিষয়টি দুঃখ জনক।

তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সোহেল রাণা জানান, মেয়ে নিখোঁজ হওয়ার একটি অভিযোগ পেয়ে ঘটনা স্থল পরিদর্শন করেছি। তবে কাউকে পাইনি। তদন্ত অব্যাহত রয়েছে।



মন্তব্য চালু নেই