মেইন ম্যেনু

মানুষকে সেহরিতে ডাকতে যুদ্ধবিমান!

এবার রোজায় মানুষকে সেহরিতে জাগাতে নতুন এক কৌশল ব্যববহার করবে ইন্দোনেশিয়া। তাই সেহরিতে মানুষকে জাগাতে যুদ্ধবিমান ব্যবহার করবে বলে জানিয়েছে দেশটির বিমান বাহিনী বিমানবাহিনী। দেশটিতে রোজাদারদের সেহরিতে জাগানোর জন্য বিভিন্ন ধরনের পদ্ধতি অনেকদিন ধরে প্রচলিত। এবার তারই অংশ হিসেবে এবার বিমানবাহিনী এই কাজে অংশ নিতে যাচ্ছে।

ইন্দোনেশিয়ার গণমাধ্যম দ্য জাকার্তা পোস্ট জানায়, সেহরির সময় যুদ্ধজাহাজগুলো অনেক নিচ দিয়ে উড়ে যাবে। এতে অনেক শব্দ হবে যার কারণে লোকজন সহজেই ঘুম থেকে উঠতে পারবেন।

সেহরিতে লোকজনকে জাগাতে যুদ্ধবিমান ব্যবহার প্রসঙ্গে একটি টুইট করে ইন্দোনেশিয়ার বিমানবাহিনী। তাদের অফিসিয়াল অ্যাকাউন্ট থেকে সেই টুইটার পোস্টে বলা হয়, আল্লাহ চাইলে আমাদের ঐতিহ্যের অংশ হিসেবে মানুষকে সেহরিতে জাগাতে যুদ্ধবিমান ব্যবহার করা হবে।

অবশ্য তখন যুদ্ধবিমান ব্যবহারের অন্য একটি কারণ আছে। এ সম্পর্কে দেশটির বিমানবাহিনীর মুখপাত্র এম ইউরিস বলেন, শুধু ঐতিহ্য রক্ষার জন্যই যুদ্ধবিমান ব্যবহার করা হবে না। ওই সময় যুদ্ধবিমান ব্যবহারের অন্য আরেকটি কারণ আছে।

তিনি বলেন, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মতে যুদ্ধবিমান চালানোর উপযুক্ত সময় হলো ভোর। ব্লাড সুগারের বিষয়টি বিবেচনায় নিয়েই এমন মত দিয়েছেন তারা। এ কারণেই ভোরে যুদ্ধবিমানের প্রশিক্ষণ চলবে। আর এতে সেহরিতে জাগানোর কাজটিও হয়ে যাবে।



মন্তব্য চালু নেই