মেইন ম্যেনু

যে কারণে সিংহাসন ছাড়লেন মালয়েশিয়ার রাজা

আকস্মিকভাবেই রোববার সিংহাসন ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছেন মালয়েশিয়ার পঞ্চম রাজা সুলতান মোহাম্মদ।

পাঁচ বছরের মেয়াদ পূর্ণ করার আগে পদত্যাগ করা তিনিই প্রথম মালয়েশীয় রাজা।

তার সিংহাসন ছাড়ার কারণস্বরূপ মালয়েশিয়ার রাজকীয় কর্মকর্তারা জানান, মালয়েশিয়ার রাজা সুলতান মোহাম্মদ রাশিয়ার সাবেক বিউটি কুইন ওকসানা ভয়েভোদিনাকে বিয়ে করার কারণে সিংহাসন ছেড়ে দিয়েছেন।

এ ছাড়া রাশিয়ার স্পুৎনিকসহ বিশ্বের বহু গণমাধ্যম এ খবর দিয়েছে।

চলতি বছরের প্রথম দিকে ওকসানা ইসলাম ধর্মগ্রহণ করার পর মালয়েশিয়ার সুলতানের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হলেন।

২৫ বছর বয়সী এ মডেল তারকা ২০১৫ সালে ‘মিস মস্কো’র শিরোপা জিতেছিলেন। এর পর তিনি মডেলিংয়ের জন্য চীন ও থাইল্যান্ড সফর করেন।

তবে ওকসানা এবং ৪৯ বছর বয়সী সুলতান মোহাম্মদের প্রথম কোথায় সাক্ষাৎ হয়েছে তা নিশ্চিত নয়। ওকসানার বাবা পেশায় একজন ডাক্তার।

নভেম্বরে চিকিৎসা ছুটিতে গিয়েছিলেন সুলতান। এর পরই রাশিয়ার রাজধানীতে সাবেক মিস মস্কোর সঙ্গে তার বিয়ের ছবি প্রকাশ্যে আসে।

কিন্তু কর্মকর্তারা এ সম্পর্কে কোনো মন্তব্য করেননি কিংবা সুলতানের স্বাস্থ্য নিয়েও বিস্তারিত কিছু জানাননি।

রাজপ্রাসাদ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, জনগণ সহনশীল, ঐক্যবদ্ধ থাকবে এবং কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে দায়িত্ব পালনের মাধ্যমে মালয়েশিয়ার সার্বভৌমত্ব, শান্তি ও সংহতি বজায় রাখবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন রাজা।

এতে আরও বলা হয়, ২০১৬ সালের ডিসেম্বরে রাজা সিংহাসনে আরোহন করেন, তিনি তার নিজ রাজ্য কেলান্তানে ফিরে যেতে প্রস্তুত।

দেশ পরিচালনায় সহায়তা করার জন্য প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ ও ক্ষমতাসীন সরকারের প্রতিও রাজা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন বিবৃতিতে।

১৯৫৭ সালে মালয়েশিয়া ব্রিটেন থেকে স্বাধীনতা লাভ করে এবং এর পর এই প্রথম কোনো রাজা সিংহাসন ছেড়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিলেন। ৬ জানুয়ারি থেকে তার এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হয়েছে। ২০১৬ সালে সুলতান ভি সিংহাসনে বসেন।



মন্তব্য চালু নেই