মেইন ম্যেনু

স্ত্রীর সঙ্গে ঝগড়া করে সন্তানকে হত্যা

ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া উপজেলায় চার বছরের বাকপ্রতিবন্ধী শিশুকে গলা টিপে হত্যা করেছেন সৎবাবা। এ ঘটনায় সৎবাবা কামাল উদ্দিনকে আটক করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার কান্দানিয়া কচুয়াপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নের কান্দানিয়া কচুয়াপাড়া গ্রামের কামাল উদ্দিনের সঙ্গে মঙ্গলবার সকালে স্ত্রী উম্মে কুলসুমের পারিবারিক বিষয় নিয়ে ঝগড়া হয়। ঝগড়া শেষে রাগ করে বাড়ি থেকে বের হয়ে পাশের বাড়িতে চলে যান কুলসুম।

এ সুযোগে বাবা কামাল উদ্দিন বাকপ্রতিবন্ধী সৎছেলে স্বাধীন মিয়াকে গলা টিপে হত্যা করেন। দুপুরে বাড়ি ফিরে স্বাধীনের নিথর দেহ দেখে মা কুলসুমের চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসেন। এ সময় স্থানীয়রা কামালকে আটক করে ভবানিপুর ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে আসেন। খবর পেয়ে কামাল উদ্দিন আটক করে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ।

নিহত স্বাধীনের বাবার নাম আলাল উদ্দিন। বাড়ি নেত্রকোনায়। মাস ছয়েক আগে কুলসুম তার প্রথম স্বামীকে তালাক দিয়ে ছেলে স্বাধীনকে নিয়ে কামাল উদ্দিনকে বিয়ে করেন।

ভবানীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাহীনূর রহমান জীবন বলেন, ওই গ্রামের লোকজন কামাল উদ্দিনকে আটক করে আমার কার্যালয়ে নিয়ে আসেন। পরে পুলিশের এসআই সাইদুর রহমান তাকে আটক করে থানায় নিয়ে যান।

ফুলবাড়িয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফিরোজ তালুকদার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, পুলিশ শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করছে। হত্যার বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।



মন্তব্য চালু নেই