মেইন ম্যেনু

হানিপ্রীতকে গ্রেফতারে মরিয়া পুলিশ

ধর্ষক ‘বাবা’র সাজা ঘোষণার পর থেকেই গা-ঢাকা দিয়েছেন তার ‘দত্তক কন্যা’ হানিপ্রীত ইনসান। তার খোঁজে চিরুনি অভিযান চালাচ্ছে ভারতের হরিয়ানা পুলিশ।

পুলিশের সন্দেহ, নেপালে লুকিয়ে রয়েছেন রাম রহিমের এই পালিত কন্যা। সম্ভবত নেপালের ধরন-ইতেহারি এলাকায় গা-ঢাকা দিয়েছেন তিনি। যদিও ঠিক কোথায় লুকিয়ে রয়েছেন, সে ব্যাপারে এখনও নিশ্চিতভাবে কিছু জানায়নি পুলিশ।

তবে নেপাল পুলিশের একটি সূত্র বলছে, হানিপ্রীতকে সেখানে পাওয়া গেলেও তাকে এই মুহূর্তে গ্রেফতার করা সম্ভব নয়। কারণ, হানিপ্রীতের বিরুদ্ধে তাদের কাছে কোনো অভিযোগ নেই। যদিও বিষয়টি নিয়ে নেপাল সরকারের সঙ্গে আলোচনা শুরু করেছে হরিয়ানা পুলিশ।

হানিপ্রীতের খোঁজে হরিয়ানা পুলিশের দুই অফিসার ইতোমধ্যে ভারত-নেপাল সীমান্তে গৌরিফান্টায় পৌঁছেছেন। সেখানকার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ঘনশ্যাম চৌরাসিয়া ইন্ডিয়া টুডেকে জানিয়েছেন, নেপাল সীমান্ত থেকে পাঞ্জাবের নম্বর প্লেট লাগানো একটি গাড়ি উদ্ধার হয়েছে।

প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশের ধারণা ওই গাড়িতে করেই হানিপ্রীত পালিয়ে যেতে পারে। ধর্ষণের অপরাধে ‘বাবা’ রাম রহিম জেলে যাওয়ার পর থেকেই কার্যত উধাও হয়েছেন হানিপ্রীত। ইতোমধ্যে তার নামে জারি হয়েছে লুক-আউট নোটিস। ২৫ অাগস্ট বাবার শাস্তি ঘোষণার পর রাজ্য জুড়ে তাণ্ডব চালানো থেকে শুরু করে বাবাকে নিয়ে পালানোর ছক তৈরি সব ক্ষেত্রেই প্রত্যক্ষ ভূমিকা ছিল হানিপ্রীতের। আনন্দবাজার।






মন্তব্য চালু নেই