অবশেষ জানা গেল নারায়ণগঞ্জের সেই ১২শ’ বস্তা চালের রহস্য

নারায়ণগঞ্জের বন্দরে যুবলীগ নেতা জাবেদ ভূঁইয়ার গুদাম থেকে জব্দ করা ১২শ’ বস্তা চালের রহস্য উন্মোচন হয়েছে। সম্প্রতি চাঁদপুর থেকে চুরি হওয়া ২৭শ’ বস্তা চালের একাংশ হচ্ছে এই জব্দ করা চাল। চুরির ঘটনায় জব্দ করা ১২শ’ বস্তা চাল উদ্ধার দেখিয়ে সেগুলো নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে চাঁদপুর থানা পুলিশ।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মদনপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পরিদর্শক ইশতিয়াক আহমেদ।

তিনি জানান, বৃহস্পতিবার (৩০ এপ্রিল) বিভিন্ন গণমাধ্যমের সংবাদ মারফত জানতে পেরে শুক্রবার বিকেলে চাঁদপুর জেলা পুলিশের একটি দল এই চালের সন্ধানে বন্দর উপজেলার মদনপুর ইউনিয়নের কেওডালা এলাকায় সিলগালা করা গুদামটির সামনে আসে। তাদের সাথে আসেন ৫/৬ জন চালের আড়ৎদার ব্যবসায়ীও। যাদের ২৭শ’ বস্তা চাল চুরি হয়েছে। এরপর তারা রসিদ ও প্রমাণ মিলিয়ে চুরি যাওয়া চাল বলে স্থানীয় থানা পুলিশকে নিশ্চিত করেন। এর আগে চাঁদপুর পুলিশ টেলিফোনে বিষয়টি অবহিত করেছিল বন্দর থানা পুলিশকে।

এর আগে ২৯ এপ্রিল রাত সাড়ে ১০টার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শুল্কা সরকার অভিযান চালিয়ে মদনপুর কেওডালা এলাকায় হায়দার নিট কম্পোজিটের একটি গুদাম থেকে ১২শ’ বস্তা চাল জব্দ করেন। এসময় তিনি গুদামটি সিলগালা করে দেন।

উপজেলা প্রশাসনের ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানকালে মদনপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক জাবেদ ভূঁইয়া চালের মালিক হিসেবে নিজেকে দাবি করেন। তবে তিনি তাৎক্ষণিক এর কাগজপত্র দেখাতে না পারায় ইউএনও তাকে একদিনের সময় বেঁধে দেন। বৃহস্পতিবার চালের বৈধ কাগজপত্র দেখানো কথা থাকলেও তিনি সেটি দেখাতে ব্যর্থ হন।

এদিকে বন্দরে ১২শ’ বস্তা চাল জব্দ করা হয়েছে এমন খবর পেয়ে চাঁদপুর পুলিশ বন্দর থানা পুলিশের সাথে যোগাযোগ করে জানান, তাদের ওখানে ২৭ বস্তা চাল চুরি হয়েছে। তারা সন্দেহ পোষণ করে বলেন, এই চাল সম্ভবত ওই চালের একাংশ হতে পারে। এমন অনুমানের ভিত্তিতে শুক্রবার দুপুরের পর চাঁদপুর পুলিশের একটি টিম বন্দরে আসে। পরে স্থানীয় পুলিশের সহযোগিতায় মদনপুর গোডাউনে গিয়ে তারা নিশ্চিত হন চাঁদপুর থেকে চুরি হওয়া ২৭ বস্তা চালের একাংশ এগুলো। পরে তারা আইনি প্রক্রিয়ার মাধ্যমে এসব চাল নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নেন।

বন্দর থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) আজহারুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, চাঁদপুর থানা পুলিশ দুপরে এসে এখানে জব্দ করা ১২শ’ বস্তা চাল উদ্ধার দেখিয়েছে। ওখান থেকে ২৭শ’ বস্তা চাল চুরি হয়েছিল। সেই চালের একাংশ এগুলো বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

তিনি আরো বলেন, চাঁদপুরে চাল চুরির ঘটনায় সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা হয়েছে। ওই মামলাতেই যুবলীগ নেতা জাবেদ ভূঁইয়াকে আসামি করা হবে। আর এখান থেকে জব্দ করা চাল পুলিশ, কোর্টের মাধ্যমে আইনি প্রক্রিয়া শেষে চুরি যাওয়া ১২শ’ বস্তা চাল উদ্ধার দেখিয়ে নিয়ে যাবে। এর প্রক্রিয়া চলছে। এ ঘটনায় জাবেদ ভূঁইয়াকে চাঁদপুর ও বন্দর থানা পুলিশ যৌথভাবে আটকের চেষ্টা করছে। তবে বুধবার রাতে চাল জব্দ করার পর থেকে তিনি আত্মগোপনে রয়েছেন।



মন্তব্য চালু নেই