মেইন ম্যেনু

আবুধাবিতে একই কমপ্লেক্সে মসজিদ ও গির্জা-সিনাগগ

সংযুক্ত আরব আমিরাতের আবুধাবিতে নির্মিত হতে যাচ্ছে মসজিদ, গির্জা ও সিনাগগ সমন্বিত একটি কমপ্লেক্স। এ কমপ্লেক্সে ইসলাম ধর্মের প্রার্থনালয় হিসেবে একটি মসজিদ, খ্রিস্টান ধর্মের উপাসনালয় হিসেবে একটি গির্জা এবং ইহুদি ধর্মের উপাসনালয় হিসেবে একটি সিনাগগ নির্মাণ করা হবে।

গত ফেব্রুয়ারিতে পোপ ফ্রান্সিসের আমিরাত সফরের সময় এ কমপ্লেক্সটি নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছিল দেশটির সরকার। যা মধ্যপ্রাচ্যে সর্বধর্মীয় প্রথম উপাসনালয় হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে।

কমপ্লেক্সটিকে বলা হচ্ছে ‘আব্রাহামিক ফ্যামিলি হাউস’। ২০২২ সালে এ কমপ্লেক্সের নির্মাণ সম্পন্ন হবে। আন্তঃধর্মীয় এ কমপ্লেক্সের নকশা তৈরি করেছেন স্থপতি স্যার ডেভিড অ্যাডজয়।

বার্তা সংস্থা ইকনা জানিয়েছে, আবুধাবির ক্রাউন প্রিন্স শেখ মোহাম্মদ বিন জায়েদ ২০ সেপ্টেম্বর এ কমপ্লেক্সের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।

ডেভিড অ্যাডজয় এক বিবৃতিতে বলেন, ‘আমার নকশাটি নির্বাচিত হওয়ায় সম্মানিত বোধ করছি। আমি বিশ্বাস করি, আমরা যে ধরনের পৃথিবীতে বাস করতে চাই, আমার স্থাপত্যশৈলী তেমনই একটি সহনশীল, উম্মুক্ত ও নিরবচ্ছিন্ন অগ্রগতিসম্পন্ন বিশ্ব বিনির্মাণের পথ প্রসারিত করবে।

এ স্থাপনার মাধ্যমে সমাজ নির্বিশেষে সব ধর্মের মানুষ শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান বজায় রাখতে এবং ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে শেখাতে পারবে।’

ঐতিহাসিক এ উদ্যোগ প্রসঙ্গে পন্টিফিক্যাল কাউন্সিল ফর ইন্টাররিলিজিয়াস ডায়ালগের সভাপতি মিগুয়েল অ্যাঞ্জেল আয়ুসো গুইজোট বলেন, ‘আব্রাহামিক ফ্যামিলি হাউস’ নির্মাণের মাধ্যমে বিভিন্ন ধর্মের অনুসারী এবং সৎ মানসিকতার নারী-পুরুষ মিলেমিশে আমাদের মধ্যে আন্তঃধর্মীয় সংলাপ, পারস্পরিক জ্ঞান এবং ভ্রাতৃত্বপূর্ণ একটি শান্তিময় পৃথিবী বিনির্মাণের সম্ভাবনা বৃদ্ধি পাবে।’



মন্তব্য চালু নেই