মেইন ম্যেনু

আমেরিকা থেকে অর্থ চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে চীন : ট্রাম্প

কার্যত তলানিতে এসে ঠেকেছে আমেরিকা এবং চীনের সম্পর্ক। এই অবস্থায় নতুন করে পণ্যের ওপর পাল্টাপাল্টি শুল্ক বসিয়েছে চীন-আমেরিকা। যা নিয়ে নতুন করে উত্তেজনা তৈরি হয়েছে। এই অবস্থায় চীনের সংস্থার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করার নির্দেশ দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

আমেরিকান সংস্থাগুলিকে এই নির্দেশ দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। সাড়ে সাত হাজার কোটি ডলারের মার্কিন পণ্যের ওপর চীনের পক্ষ থেকে শুল্ক আরোপ করার পর দ্রুত এই আহ্বান জানালেন তিনি। এর আগে আমেরিকা চীনের তিন হাজার কোটি ডলার মূল্যের চীনের পণ্যের ওপর বাড়তি শুল্ক আরোপ করে। জবাবে মার্কিন পণ্যের উপর বাড়তি শুল্ক আরোপ করেছে চীন।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প কয়েকদফা টুইটার পোস্টে মার্কিন কোম্পানিগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, চীনের সঙ্গে বাণিজ্য না করে তাদের পণ্য রফতানির জন্যে বিকল্প গন্তব্য খুঁজে বের করতে হবে।

টুইট বার্তায় তিনি মার্কিন কোম্পানিগুলোকে তাদের পণ্যের ব্যাপারে কৌশল পরিবর্তনের নির্দেশ দিয়েছেন। তবে এই বিষয়ে তিনি বিস্তারিত কিছু বলেননি। কবে কিভাবে এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন হবে তাও তিনি তা পরিষ্কার করেন নি।

অবশ্য একথাও ঠিক যে, মার্কিন কোম্পানিগুলোকে বাধ্য করার কর্তৃত্ব হোয়াইট হাউসের হাতে নেই। টুইটে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেছেন, বছরের পর বছর ধরে চীন আমেরিকা থেকে অর্থ চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে কিন্তু এখন তা অবশ্যই বন্ধ করতে হবে।



মন্তব্য চালু নেই