কিশোরীর ইচ্ছা পূরণ করলেন প্রধানমন্ত্রী

অটিস্টিক এক কিশোরীর ইচ্ছা পূরণ করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ভিডিও কলে কথা বলার ইচ্ছা প্রকাশ করে সোশ্যাল মিডিয়ায় দেয়া ভিডিও বার্তার প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৫টার দিকে প্রধানমন্ত্রী রায়া নামের ওই কিশোরীর সঙ্গে হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে কথা বলেন।

যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপিকা অপু উকিল তার ভেরিফাইড ফেসবুক আইডি থেকে পোস্ট দিয়েও প্রধানমন্ত্রীর কথা বলার বিষয়টি জানিয়েছেন। পোস্টে অপু উকিল ওই কিশোরীর সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কলের দুটি স্থিরচিত্রও প্রকাশ করেছেন।

ফেসবুক পোস্টে অপু উকিল লিখেছেন, ‘নিজের জীবনকে জনগণের জন্য উৎসর্গ করে দিয়ে যিনি প্রতিটি মুহূর্ত এদেশের মানুষের স্বপ্ন সত্যি করতে চান, ইচ্ছা পূরণ করতে চান। তিনি জাতির জনকের কন্যা মানবতার বাতিঘর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা।’

তিনি আরও লিখেছেন, ‘এক কিশোরী প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলার আগ্রহ প্রকাশ করে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছিল। মানবিক প্রধানমন্ত্রী সে কথা জানতে পেরে পরম স্নেহে কিশোরীটির সঙ্গে ভিডিও কল করে শত ব্যস্ততার মধ্যেও কথা বলেছেন।’

প্রধানমন্ত্রীর সহকারী প্রেস সচিব এ বি এম সরওয়ার-ই-আলম সরকার জানান, ‘অটিজম ম্যানেজমেন্ট সেন্টার’ নামে অটিজম সম্পর্কিত একটি ফেইসবুক গ্রুপে রায়া নামের একটি বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশু তার শিক্ষিকা হাসিনা হাফিজের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি তার ভালোবাসা উল্লেখ করে তার সঙ্গে কথা বলার স্বপ্ন জানিয়ে একটি ভিডিও পোস্ট করেন।

এরপরই শিশুটির ভালোবাসায় সাড়া দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টার দিকে রিয়ার সঙ্গে ভিডিওকলে যুক্ত হয়ে তার খোঁজ-খবর নেন। তার সঙ্গে কিছুক্ষণ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

পরে রায়ার শিক্ষিকা হাসিনা হাফিজ প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।



মন্তব্য চালু নেই