শিরোনাম:

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের চেষ্টা

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে এক শিক্ষার্থীকে প্রতারক প্রেমিক কর্তৃক ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে গ্রাম্য শালিসে উভয়পক্ষের গৃহীত সিদ্ধান্তকে না মানায় ওই লম্পটের বিরুদ্ধে থানায় এজাহার জমা দিয়েছে ভুক্তভোগী পরিবার।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ফুলবাড়ী ইউপির নাচাই কোচাই গ্রামের দাখিল মাদ্রাসার এক শিক্ষার্থীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে একই গ্রামের সাইদুল প্রধানের ছেলে আপেল মিয়া।

সেই সুবাদে গত বুধবার (২৩ নভেম্বর) বাড়িতে একাকি থাকার সুযোগে রাতের আঁধারে আপেল ওই শিক্ষার্থীর ঘরে ঢুকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এসময় শিক্ষার্থীর আত্ম চিৎকারে প্রতিবেশিরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে প্রতারক পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় শনিবার (২৬ নভেম্বর) গ্রামে শালিসী বৈঠকে উভয় পরিবার বিয়ের সিদ্ধান্ত নেয়। এরপর আপেলের পরিবারের পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীকে বিভিন্ন ধরণের হুমকি ও বিয়েতে অস্বীকৃতি জানায়।

গ্রাম্য শালিস অমান্য করে আপেল মিয়ার পরিবারের ছল-চাতুরির আশ্রয় থেকে শিক্ষার্থীর সামাজিক মর্যাদা রক্ষা ও লম্পটকে আইনের আওতায় আনতে ভুক্তভোগীর পরিবারের পক্ষ থেকে গোবিন্দগঞ্জ থানায় লিখিত এজাহার জমা দিয়েছে।

এজাহার জমার বিষয়টি নিশ্চিত করে গোবিন্দগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ ইজার উদ্দিন জানান, বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।