চোখ ধাঁধানো গোল বাংলাদেশি তরুণের, মুগ্ধ ইংলিশ কোচ জেমি

ফয়সাল আহমেদ ফাহিম জাতীয় দলের ইংলিশ কোচ জেমি ডে’র চোখে পড়েছেন আগেই। ইতিমধ্যে জাতীয় দলের প্রাথমিক ক্যাম্পে একবার ডেকেছেনও এ তরুণকে। গত ৪ ডিসেম্বর দোহায় কাতারের বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের যে ম্যাচটি খেলেছে বাংলাদেশ, ওই ম্যাচের জন্য ডাকা প্রাথমিক ক্যাম্পে ছিলেন সিরাজগঞ্জের এই তরুণ।

মঙ্গলবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে সহকারী কোচ স্টুয়ার্ট ওয়াটকিসকে নিয়ে জেমি দেখছিলেন শেখ জামাল ও সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের ম্যাচ। যে ম্যাচে চোখে লেগে থাকার মতো এক গোল করলেন ১৮ বছরের ফয়সাল আহমেদ ফাহিম।

২২ মিনিটে তার পায়ের কারুকাজ ও বুদ্ধিদীপ্ত ফিনিশিং থেকে বিস্মিত হয়েছেন অনেকে। নাইজেরিয়ান জন ওকোলির বাড়ানো বল ধরে বাম দিক দিয়ে ঢুকে পড়েছিলেন শেখ জামালের সীমানায়। বাধা দিতে আসা জামালের ডিফেন্ডার মোজাম্মেল হোসেন নিরাকে ঘোল খাইয়ে ডজ দিলেন। নিরা আর দাঁড়িয়ে থাকতে পারেননি, পড়ে যান মাটিতে। একটু এগিয়ে গোলরক্ষকের মাথার ওপর দিয়ে যেভাবে বল জামালের জালে পাঠিয়েছেন ফাহিম, তা দেখে চোখ জুড়িয়েছে সবার।

এই ফাহিম আগেও দর্শনীয় গোল করে নিজের প্রতিভার আলো ছড়িয়েছেন। ২০১৭ সালের ২৪ সেপ্টেম্বর দোহার গ্র্যান্ড হামাদ স্টেডিয়ামে কাতারের বিপক্ষে এমন দর্শনীয় গোল ছিল তার। সেটি ছিল এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাই পর্বের ম্যাচ। ওই ম্যাচে তিনি গোল করেছিলেন কাতারের ২ ডিফেন্ডারকে গতিতে ছিটকে দিয়ে। বাংলাদেশের কিশোররা জিতেছিল ২-০ গোলে।

ওই বছরই আগস্টে নেপালে সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ চ্যাম্পিয়নশিপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেছিলেন ফাহিম। গ্রুপপর্বে ভুটানের বিপক্ষে এবং সেমিফাইনালে নেপালের বিপক্ষেও গোল ছিল তার।

মঙ্গলবার ফাহিমের দারুণ গোলের পরও জিততে পারেনি তার দল। ২-০ গোলে এগিয়ে গিয়েও ৩-২ ব্যবধানে হেরেছে শেখ জামালের কাছে। জিতলে হয়তো দারুণ গোলের জন্য ম্যাচটি স্মরণীয় হয়ে থাকতো এই তরুণের কাছে।

কেমন গোল করেছেন ফাহিম? তাৎক্ষণিকভাবে প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হয়েছিল স্টেডিয়ামে বসে খেলা দেখা জাতীয় দলের ইংলিশ কোচ জেমি ডে’র কাছে। তিনি রীতিমতো মুগ্ধ এই তরুণের গোলে। বললেন, ‘চমৎকার গোল করেছে সে।’



মন্তব্য চালু নেই