ট্রাম্পের করোনার খবরে বিশ্ব শেয়ারবাজারে ধস!

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্প।

ট্রাম্পের করোনা আক্রান্তের খবরে নিম্নমুখী হয়ে পড়েছে বিশ্বের অধিকাংশ পুঁজিবাজারের লেনদেন সূচক।

যুক্তরাষ্ট্র, এশিয়া ও ইউরোপে লেনদেনের সূচক নিম্নমুখী হয়ে পড়েছে। সেই সঙ্গে কমেছে জ্বালানি তেলের দাম।

যুক্তরাষ্ট্রে শেয়ারবাজারে লেনদেন কমেছে ১.৯ শতাংশ।
বিশ্বের অন্যতম সেরা পুঁজিবাজারে জাপানের নিক্কেইয়ে লেনদেন কমেছে শূন্য দশমিক ৭ শতাংশ।

এছাড়া সিডনি, সিঙ্গাপুর ও ব্যাংককে লেনদেন কমেছে এক শতাংশের বেশি।

আর ইন্দোনেশিয়ার জাকার্তায় পুঁজিবাজারে ধস এসেছে লাল তালিকায়।

লন্ডনে স্টোক মার্কেটে লেনদেন কমেছে শূন্য দশমিক ৭ শতাংশ, ফ্রাঙ্কফুর্টে কমেছে শূন্য দশমিক ৯ শতাংশ, প্যারিসে কমেছে শূন্য দশমিক ৮ শতাংশ।

করোনা মহামারিতে বিশ্বজুড়ে জ্বালানি তেলের দাম এমনিতেই নিম্নমুখী। ট্রাম্পের আক্রান্তের খবরের পর জ্বালানি তেলের দাম আরও কমেছে।

শুক্রবার জ্বালানি তেলের দাম কমেছে প্রায় ৩ শতাংশ পর্যন্ত।

আন্তর্জাতিক বাজারে অপরিশোধিত তেল ২ দশমিক ৪২ শতাংশ কমে ব্যারেল প্রতি দাম দাঁড়ায় ৩৯ দশমিক ৯৪ ডলার। যুক্তরাষ্ট্রে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দাম ২.৪৩ শতাংশ কমে ব্যারেল প্রতি দাম দাঁড়ায় ৩৭ দশমিক ৭৮ ডলার।

এছাড়া বিশ্বজুড়ে অনেকে জ্বালানি তেলের কোম্পানিগুলোর শেয়ারের দাম কমেছে। অস্ট্রেলিয়ার বিচ এনার্জির শেয়ারের দাম কমেছে ৬.৩৭ শতাংশ, সান্তোস এনার্জির দাম কমেছে ৫.৪৭ শতাংশ এবং জাপানের ইনপেক্সের দাম কমেছে ৩.০৭ শতাংশ।

এর আগে, শুক্রবার সকালে এক টুইট বার্তায় ট্রাম্প বলেন, “কোভিড-১৯ পরীক্ষায় আমি ও ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া পজিটিভ হয়েছি।
আমরা তাৎক্ষণিকভাবে কোয়ারেন্টাইন এবং সুস্থ হওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করতে যাচ্ছি। আমরা একসঙ্গেই এটাকে জয় করব।”



মন্তব্য চালু নেই