মেইন ম্যেনু

নোয়াখালীতে স্পিরিট পান করে ৬ জনের মৃত্যু

নোয়াখালীর কোম্পানিগঞ্জ উপজেলায় স্পিরিট পান করে অসুস্থ হয়ে ছয়জন মারা গেছেন। এ ঘটনায় অসুস্থ হয়েছেন অন্তত ছয়জন।

শুক্রবার সকাল থেকে শনিবার ভোর পর্যন্ত বসুরহাট পান বাজারসংলগ্ন রফিক হোমিও হলের স্পিরিট পান করে একে একে তাদের মৃত্যু হয়।

নিহতরা হলেন- উপজেলার বসুরহাট পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের বাঁশ বেপারি বাড়ির নূর নবী মানিক (৫০), একই এলাকার ক্ষিরত মহাজন বাড়ির রবি লাল রায় (৫৫), মোহাম্মদনগর গ্রামের মহিন উদ্দিন (৪০), সিরাজপুর ইউনিয়নের মতলব মিয়ার বাড়িসংলগ্ন মো. সবুজ (৪৫) ও চর কাঁকড়া ইউয়িনের টেকের বাজার এলাকার আবদুল খালেক (৫৮) চর কাঁকড়া এলাকায় আবদুল লিটন (৬৫)।

এদিকে এ ঘটনায় রফিক হোমিও হলের মালিক ডা. জায়েদ ও তার ছেলে প্রিয়মকে আটক করেছে পুলিশ।

এ বিষয়ে কোম্পানিগঞ্জ থানার ওসি আরিফুর রহমান জানান, শুক্রবার সকালে স্পিরিট পানে অসুস্থ হয়ে স্থানীয় হাসপাতালে সবুজ ও আবদুল খালেক মারা যান।

রাতে একই দোকানের স্পিরিট পানে মৃত্যু হয় নূর নবী মানিক, রবি লাল ও মহিন উদ্দিনের।

বৃহস্পতিবার সকালে ঢাকায় নেয়ার পথে আবদুল খালেক লিটনও মারা যান।

তবে তিনজনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। অন্যদের মরদেহ উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন ছয়জন বলে জানান ওসি।

স্থানীয়দের অভিযোগ, এ দোকানের মালিক জায়েদ ও তার ছেলে প্রিয়ম অনেক বছর ধরে হোমিও হল নামের দোকানে স্পিরিটসহ বিভিন্ন নেশা জাতীয় দ্রব্য বিক্রি করে আসছেন।



মন্তব্য চালু নেই