নড়াইলে স্ত্রীকে হত্যার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদন্ড

নড়াইলে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আইনে মো. এনায়েত মোল্লাকে (৪০) স্ত্রী হত্যার দায়ে মৃত্যুদণ্ড ও এক লাখ টাকা জরিমানা করেছেন বিজ্ঞ বিচারক জেলা ও দায়রা জজ মুন্সি মশিউর রহমান।

সোমবার সকাল ১০টায় নড়াইল জেলা ও দায়রা জজ আদালতে এ মামলার রায় ঘোষণা করা হয়।

মৃত্যদণ্ড প্রাপ্ত মো. এনায়েত মোল্লা লোহাগড়া উপজেলার কাশিপুর গ্রামের ইন্তাজ মোল্যার ছেলে।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, মো. এনায়েত মোল্যা স্বস্ত্রীক শুশুরবাড়ী সদর উপজেলার চাঁদপুর গ্রামের মৃত জব্বার মোল্যার বাড়িতে থাকতেন। এনায়েত যৌতুকের জন্য বিভিন্ন সময় স্ত্রী নারগিস বেগমকে নির্যাতন করতো। সর্বশেষ ২১ নভেম্বর ২০১৮ দিনগত রাতে স্ত্রীকে তার বাবার দেয়া জমি বিক্রয় করতে বললে, ভিকটিম জমি বিক্রিতে অপারগতা প্রকাশ করে। ওই রাতেই তাকে হত্যা করে গলায় শাড়ি পোঁচিয়ে বাড়ির পাশে পুকুর পাড়ে আম গাছে ঝুলিয়ে রাখে।

পরবর্তীতে বাড়ির পাশের লোকেরা ঘটনাটি জানতে পেরে, ভিকটিমের ভাই মো. বাকু মোল্যা ও বোন মোসাম্মৎ পারভিন খাতুন সদর থানা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ এসে মরদেহটি উদ্ধার করে অপমৃত্যু মামলা দায়ের করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালে মর্গে পাঠান।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মো. রেজাউল করিম তদন্ত শেষে আসামির বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করে।

আদালতের বিজ্ঞ বিচারক জেলা ও দায়রা জজ মুন্সি মশিউর রহমান দীর্ঘ শুনানি শেষে মো. এনায়েত মোল্লাকে স্ত্রী হত্যার দায়ে মৃত্যুদণ্ড ও এক লাখ টাকা জরিমানা করেন।



মন্তব্য চালু নেই