প্রধান ম্যেনু

পেঁয়াজের দাম বাড়ায় মূল্যস্ফীতি বেড়েছে : পরিকল্পনামন্ত্রী

পেঁয়াজের দাম বাড়ায় চলতি বছরের নভেম্বরে মূল্যস্ফীতি বেড়েছে বলে জানিয়েছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান। মঙ্গলবার (১০ ডিসেম্বর) সকালে রাজধানীর শেরে বাংলা নগরে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি- একনেকের সাপ্তাহিক বৈঠকে তিনি এ তথ্য জানান।

মন্ত্রী জানান, ২০১৮-১৯ অর্থবছরে দেশের জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৮ দশমিক এক পাঁচ শতাংশ, যা আগের রেকর্ড ছাড়িয়েছে। জিডিপি প্রবৃদ্ধিকে ইতিবাচক ভাবে দেখলেও অর্থনীতিতে বিদ্যমান চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় সরকারের আরো জোরালো ভূমিকা চান অর্থনীতিবিদরা।

নানামুখী উদ্যোগের পরও লাগামহীন পেঁয়াজ বাজার নিয়ন্ত্রণে আনতে পারেনি সরকার। এর মধ্যেই এবার মূল্যস্ফীতিতে পড়লো এর বিরূপ প্রভাব। অক্টোবরের তুলনায় দেশে সার্বিক মূল্যস্ফীতি বেড়েছে ০ দশমিক ৫৮ ভাগ।

মঙ্গলবার রাজধানীর শেরে বাংলা নগরে একনেক সভায় যা অকপটে স্বীকার করেন পরিকল্পনামন্ত্রীও। সভায় জানানো হয়, ২০১৮-১৯ অর্থবছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধি অর্জনে আগের রেকর্ড ভেঙ্গেছে বাংলাদেশ। এছাড়া, ডলারের হিসেবে অপরিবর্তিত থাকলেও দেশের মানুষের মাথাপিছু আয় কিছুটা বেড়েছে টাকার অংকে।

পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেন, আগের মাসে মূল্যস্ফীতি ৪.০৭ ভাগ ছিল, এ মাসে বেড়ে ৬.০৫ ভাগ হয়েছে।

স্থিতিশীল রাজনৈতিক পরিস্থিতির কারণে জিডিপি প্রবৃদ্ধিতে ইতিবাচক ধারা অব্যাহত রয়েছে বলে মনে করেন অর্থনীতিবিদরা। দুই অংকের প্রবৃদ্ধি অর্জনে এখনও অনেক কাজ বাকি বলেও মত তাদের।

বিআইআইএসএস গবেষণা পরিচালক ডা. মাহফূজ কবীর বলেন, দেশি এবং বিদেশি বিনিয়োগকারীদের জন্য আলাদা করে অন-স্টপ সার্ভিস যদি চালু করতে পারি। সেই ক্ষেত্রে বিনিয়োগকারীরা আগ্রহী হবেন। তাদের যদি আগ্রহ বাড়ে তাহলে আমাদের প্রবৃদ্ধি অর্জন করা সম্ভব। এই মূহুর্তে অনেক গুলি ইকোনোমিক জোনে কাজ চলছে, এবং এগুলো কাজ ঠিক কবে নাগাদ শেষ হবে সে বিষয়ে কিছু বলা নাই।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অর্থবছরের ১২তম সভায় চূড়ান্ত অনুমোদন দেয়া হয়েছে ৯ হাজার ২শ কোটি টাকা ব্যয়ের ৭টি প্রকল্পের। যার মধ্যে রয়েছে হযরত শাহজালাল বিমানবন্দর সম্প্রসারণ, পাকিস্তানে পূর্ণাঙ্গ একটি দূতাবাস স্থাপন প্রকল্প।



মন্তব্য চালু নেই