শিরোনাম:

বাঁশখালীতে পুলিশের গুলিতে শ্রমিক হত্যার বিচার চায় এলডিপি

বাঁশখালীতে পাঁচজন শ্রমিক নিহতসহ অর্ধশতাধিক আহত হওয়ার ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে ২০ দলীয় জোট শরিক লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টি-এলডিপি সভাপতি আবদুল করিম আব্বাসী ও মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম বলেন, বাঁশখালী এস আলম গ্রæপের বিদ্যুৎ কেন্দ্রে ইফতার ও নামাযের সময় বরাদ্দ সহ ১০ দফা দাবিতে বিক্ষোভে শ্রমিকদের উপর পুলিশের নির্বিচার গুলীর ঘঁনা বর্বরোচিত ও মানবতার চরম লঙ্ঘন।

রবিবার (১৮ এপ্রিল) গণমাধ্যমে প্রেরিত এক বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় এসব কথা বলেন।

তারা অবিলম্বে এই নির্মম ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত, আহত ও নিহত শ্রমিকদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ প্রদানে জোর দাবি জানিয়ে বলেন, অন্যথায় চট্টগ্রাম থেকেই বৃহত্তর আন্দোলনের শুরু হতে পারে। যা সরকারের জন্য শুভ হবে না।

নেতৃদ্বয় বাঁশখালীর বিদ্যুৎ কেন্দ্রের পুলিশের গুলীতে নিহত এবং আহত শ্রমিকদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান এবং শোক সপ্তপ্ত পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবি জানিয়ে আন্দোলনরত শ্রমিকদের যৌক্তিক দাবির প্রতি একাত্বতা প্রকাশ করেন।

তারা আরো বলেন, বাঁশখালীর গন্ডুমারায় বিদ্যুৎ কেন্দ্রে কর্মরত শ্রমিকরা গত কয়েক দিন ধরেই বেতন ভাতাসহ ১০ দফা দাবিতে তাদের আন্দোলন চালিয়ে আসছিল। বারবার বেতন ভাতার জন্য শ্রমিকরা দাবি জানালেও কর্তৃপক্ষ এর কোনো কর্ণপাত করেনি। উল্টো লকডাউনের মধ্যে এই শ্রমিকরা বেতন ভাতার দাবিতে যখন বিক্ষোভ করলো পুলিশ তখন তাদের উপর গুলী চালায় এবং এতে ৫ জন শ্রমিক নিহত ও অনেকে গুলীবিদ্ধ হয়ে গুরুতর আহত হয়। যা প্রমান করে জনগনের নৈতিক অধিকার নির্যাতনের মধ্য দিয়ে দমিয়ে রাখতে চায় সরকার। যা কখনো সম্ভব নয়।



মন্তব্য চালু নেই