শিরোনাম:

বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অগ্রগতিতে প্রথম অবদান বঙ্গবন্ধুর : তাজুল ইসলাম

রাজধানীর বেইলী রোডের অফিসার্স ক্লাবে ২৯তম বিসিএস ক্যাডারদের একাদশ বর্ষপূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী তাজুল ইসলাম।

শুক্রবার (১৬ সেপ্টেম্বর) উক্ত সভায় বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অগ্রগতিতে বঙ্গবন্ধুর অবদানের ব্যাপারে উল্লেখ করেন মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর সময় প্রথম বাজেট ছিল ৭০২ কোটি। সে সময়ই তিনি প্রাথমিক শিক্ষকদের চাকরি সরকারিকরণ করে বেতন দিয়েছিলেন। পাকিস্তান আমলে ৮৯ ডলারের মাথাপিছু আয় ২৭৭ ডলার হয়েছিল বঙ্গবন্ধুর সময়ে।

বঙ্গবন্ধু হত্যার পরে অর্থনৈতিক অগ্রগতি থেমে গিয়েছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ২১ বছরে মাথাপিছু আয় বেড়েছিল সামান্য। তারপর আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে ৬০০ থেকে ৭০০ ডলারের মাঝামাঝি আনে। ২০০১ সালে বিএনপি আবার ক্ষমতায় এলো; তারপর দেশের অগ্রগতি থেমে গেল।

বঙ্গবন্ধুর কন্যার নেতৃত্বে বাংলাদেশ ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশ হতে সকল পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে বলে এ সময় মন্ত্রী জানান।

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশকে আমেরিকান পররাষ্ট্রমন্ত্রী হেনরি কিসিঞ্জার বলেছিলেন তলাবিহীন ঝুড়ি। আর এখন সেই আমেরিকার রাষ্ট্রপতি কেনিয়ার গিয়ে বলেন বাংলাদেশের উন্নয়ন পরিকল্পনা অনুসরণ করা উচিত।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ সহকারী সচিব মমতাজ বেগমের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন।