শিরোনাম:

ভাসানচরের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছে রোহিঙ্গারা

ভাসানচরে স্থানান্তরের জন্য চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছে রোহিঙ্গাদের বহনকারী ১০টি বাস। ইতোমধ্যে রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে স্থানান্তর প্রক্রিয়া শুরু করেছে। তবে প্রথম দফায় উখিয়া ক্যাম্প থেকে ১০০ রোহিঙ্গা পরিবারকে ভাসানচরের স্থানান্তরের জন্য রওনা দিয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টার দিকে উখিয়ার অস্থায়ী ট্রানজিট ক্যাম্প থেকে ১০টি বাসে করে রওনা হন রোহিঙ্গারা।

তবে, স্থানান্তর প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে উখিয়া ক্যাম্প থেকে তাদের চট্টগ্রামের পতেঙ্গা দিয়ে নেওয়া হচ্ছে। সেখান থেকে আগামীকাল তাদের ভাসানচর নেওয়ার কথা রয়েছে।

জানা গেছে, প্রথম দফায় প্রায় ৬শ’ পরিবারকে স্থানান্তর করা হবে। তবে ভাসানচরে যেতে আগ্রহীদের কক্সবাজার থেকে করোনা পরীক্ষা করিয়ে বাসে করে চট্টগ্রাম নেওয়ার পরে সেখান থেকে নৌ বাহিনীর জাহাজে ভাসানচর যাবেন রোহিঙ্গারা। রোহিঙ্গা স্থানান্তর প্রক্রিয়ায় নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করছে দেশের র‌্যাব বাহিনী।

এদিকে স্বেচ্ছায় স্থানান্তরে রাজি হওয়া রোহিঙ্গাদের ভাসানচর নিয়ে যেতে প্রস্তুত রয়েছে দেশের নৌবাহিনীর ১২টি ও সেনাবাহিনীর ১টি জাহাজ। ইতোমধ্যে ভাসানচরে মজুদ রাখা হয়েছে প্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী।

ভাসানচরে প্রথম ধাপে যাওয়া শরণার্থীদের রাখা হবে ৫-১১ নম্বর ক্লাস্টারে। তিন মাসের মজুদ সক্ষমতার খাদ্য গুদামে প্রস্তুত আছে ৬৬ টন খাদ্যপণ্য। তবে প্রথম দিকে রোহিঙ্গাদের রান্না করা খাবার সরবরাহ করবে আল মানাহিল ওয়েলফেয়ার। সেই সাথে রোহিঙ্গাদের জীবন যাপন নির্বিঘ্ন করতে আগেই ভাসানচরে পৌঁছেছেন নিরাপত্তা বাহিনীর প্রায় আড়াইশ সদস্য এবং ২২ এনজিওর কর্মকর্তারা।



মন্তব্য চালু নেই