শিরোনাম:

মজুরি বৃদ্ধির দাবিতে সারাদেশে চা শ্রমিকদের কর্মবিরতি

মজুরি বৃদ্ধির দাবিতে চট্টগ্রাম, সিলেটসহ সারাদেশে একযোগে চা বাগানে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি পালন করেছেন চা শ্রমিকরা।

শনিবার সকাল থেকে দেশের ১৬৫টি চা বাগানে শ্রমিকরা একযোগে পূর্ব ঘোষিত এ কর্মবিরতি পালন করছেন বলে জানা গেছে।

শ্রীমঙ্গল উপজেলার ভাড়াউড়া, খাইছড়া, ফুলছড়া, কালিঘাট, খেজুরী চা বাগানসহ শ্রীমঙ্গল উপজেলার সবকটি চা বাগানের শ্রমিকরা প্রতিদিনের মতো সকাল ৯টার ভেতরে কাজের উদ্দেশে ঘর থেকে বের হয়ে কাজে যোগ না দিয়ে চা বাগানের গুরুত্বপূর্ণ স্থানগুলোতে দাঁড়িয়ে মিছিল সমাবেশ করেন।

চা বাগানের নারী শ্রমিক গৌড়ি হাজরা বলেন, আমরা ১২০ টাকা মজুরি পাই, এ দিয়ে আমাদের সংসার চলে না। আমরা অনেক কষ্ট করে জীবন পরিচালনা করছি। বাজারে সব কিছুর দাম বেশি। তাই আমাদের এ কম মজুরি দিয়ে সংসার চালানো সম্ভব হচ্ছে না।

বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের বালিশিরা ভ্যালী সভাপতি বিজয় হাজরা বলেন, আমরা গত ১৯ মাস থেকে কত আবেদন নিবেদন করেছি। কিন্তু মালিকপক্ষের তালবাহানা ও সময়ক্ষেপণের কারণে কোনো কিছুই হচ্ছে না।

তিনি বলেন, মজুরি ১২০ টাকা থেকে ৩শ টাকায় বৃদ্ধি করার দাবি অনেক দিনের। মালিকপক্ষ ইতিমধ্যে ১৪ টাকা বর্ধিত করার প্রস্তাব দিয়েছে। ১৪ টাকা বৃদ্ধি হলে একজন শ্রমিকের মজুরি হবে ১৩৪ টাকা। এই ১৩৪ টাকা দিয়ে কিভাবে একজন শ্রমিকের জীবন চলবে?

এ ব্যাপারে ফিনলে টি কোম্পানির ভাড়াউড়া ডিভিশনের জেনারেল ম্যানেজার গোলাম মোস্তফা শিবলী জানান, চা বাগান মালিকপক্ষ ও চা শ্রমিক ইউনিয়ন নেতৃবৃন্দে মধ্যে আলাপ আলোচনা চলমান রয়েছে। চুক্তিনুযায়ী মজুরি বৃদ্ধির সময়সীমা এখনও শেষ হয়নি। শ্রমিকদের কর্মবিরতি পালন করা বে-আইনি বলে তিনি জানান।