মেইন ম্যেনু

‘রাখাইনে এখনও ধ্বংস করা হচ্ছে রোহিঙ্গা গ্রাম’

মিয়ানমারের রাখাইনে এখনও ধ্বংস করা হচ্ছে রোহিঙ্গা গ্রাম। সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার স্ট্রাটেজিক পলিসি ইন্সিটিটিউটের (এএসপিআই) গবেষণা প্রতিবেদনে বের হয়ে আসে এমন তথ্য।

স্যাটালাইট ইমেজ বিশ্লেষণ করে গবেষকরা জানান, সংস্কারের পরিবর্তে রোহিঙ্গা অধ্যুষিত গ্রামগুলোতে নির্মাণ করা হচ্ছে সেনা ক্যাম্প।

এএসপিআই জাতিসংঘের চিহ্নিত ৩৯২টি রোহিঙ্গা গ্রামের ওপর গবেষণা চালায়। এতে দেখা যায়, ২০১৮ সালের ডিসেম্বর থেকে ২০১৯ সালের জুন পর্যন্ত নতুন করে ৫৮টি রোহিঙ্গা বসতি গুঁড়িয়ে দেয়া হয়েছে।

স্যাটালাইট ছবিতে রোহিঙ্গা বসতি সংস্কারের তেমন কোনও উল্লেখযোগ্য প্রমাণ মেলেনি। ৩৯২টি গ্রামের মধ্যে ৩২০টি গ্রাম আগের অবস্থায়ই রয়েছে। কেবল ৪৫টি ক্যাম্প নির্মাণ করা হয়েছে যেখানে অভ্যন্তরীণভাবে বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গাদের রাখা হয়েছে। তবে নতুন নির্মাণের তালিকায় রয়েছে ৬টি সেনা ক্যাম্প।

বিভিন্ন মানবাধিকার সংস্থার তথ্য মতে, ২০১৭ সালে আগস্টে শুরু হওয়া সহিংসতায় প্রায় ৪০০ রোহিঙ্গা গ্রাম গুঁড়িয়ে দেয়া হয়, হত্যা করা হয় প্রায় সাড়ে ৯ হাজার রোহিঙ্গাকে।

এদিকে, সম্প্রতি মিয়ানমারে সরকারের নিয়ন্ত্রিত এলাকায় ১০ দিনের সফর শেষ করেন জাতিসংঘের বিশেষ দূত ক্রিস্ট্রিনা বার্গনার। এ ব্যাপারে তিনি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, রাখাইনে এখনও রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের মতো পরিস্থিতি তৈরি করতে ব্যর্থ দেশটির সরকার।



মন্তব্য চালু নেই