শিরোনাম:

রেইন ট্রির বিরুদ্ধে তিনটি মামলা হচ্ছে

রাজধানীর বনানীর রেইন ট্রি হোটেলের বিরুদ্ধে পৃথক তিনটি আইনে তিনটি মামলা দায়ের করা হচ্ছে। এর আগে রোববার দুপুরে অভিযান চালিয়ে হোটেলটিতে বিক্রির অনুমোদন নেই এমন ১০ বোতল বিদেশি মদ জব্দ করে শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তরা।

হোটেলটির বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা তিনটি হচ্ছে- মানি লন্ডারিং, কালোবাজারি এবং শুল্ক ফাাঁকি। শুল্ক গোয়েন্দার মোহাম্মদ শফিউর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়পড়ুয়া দুই ছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় আলোচনায় আসা হোটেলটির প্রতিটি কক্ষে তল্লাশি চালানো হয়। শুল্ক বিভাগের বিভাগীয় পরিচালক সিফাত মরিয়ম ও শুল্ক গোয়েন্দার মোহাম্মদ শফিউর রহমানের নেতৃত্বে ওই মদের বোতলগুলো জব্দ করা হয়।

এদিকে শুল্ক গোয়েন্দারা একইদিনে ঢাকায় আপন জুয়েলার্সের শাখাগুলোতেও অভিযান চালিয়েছে। এর মধ্যে সুবাস্তু টাওয়ারে আপন জুয়েলার্সের একটি শোরুম সিলগালা করে দেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি রাজধানীর বনানীতে রেইন ট্রি হোটেলে জন্মদিনের পার্টিতে বিশ্ববিদ্যালয়পড়ুয়া দুই ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়। যাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ রয়েছে তাদের মধ্যে একজন আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার হোসেনের ছেলে সাফাত আহমেদ।