শিরোনাম:

লাশ নিয়ে বাড়ি যাওয়ার পথে দুর্ঘটনায় সবাই লাশ

বরিশালের উজিরপুর উপজেলায় অ্যাম্বুলেন্সের সঙ্গে কভার্ড ভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে ছয়জন নিহত হয়েছেন।

উপজেলার জয়শ্রী এলাকায় ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কে বুধবার বিকেল পৌনে ৫টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে উজিরপুর থানার ওসি জিয়াউল আহসান জানিয়েছেন।

নিহতরা সবাই অ্যাম্বুলেন্সের যাত্রী ছিলেন। তাদের মধ্যে পাঁচজনই এক পরিবারের।

নিহতরা হলেন ঝালকাঠীর বাউকাঠি গ্রামের সিরাজুল ইসলামের স্ত্রী কোহিনূর বেগম (৬৫), তিন সন্তান আরিফ হোসেন (৩৫), তারেক হোসেন (২৮), শিউলি বেগম (৩০), আরিফ হোসেনের শ্যালক নজরুল ইসলাম (৩৫) ও অ্যাম্বুলেন্স চালক আলমগীর হোসেন।

ওসি জিয়াউল বলেন, তিন দিন আগে রাজধানী ঢাকার উত্তরায় একটি বেসরকারি হাসপাতালে আরিফ হোসেনের স্ত্রীর মেয়ে হয়। মঙ্গলবার রাতে শিশুটি মারা যায়। আরিফের স্ত্রী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। সন্তানের মরদেহ নিয়ে অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকা থেকে গ্রামের বাড়ি বাউকাঠি যাচ্ছিলেন তারা।

“পথে বিপরীতমুখী কভার্ড ভ্যানের সঙ্গে অ্যাম্বুলেন্সের সংঘর্ষ হয়। একই সময় কভার্ড ভ্যানটিকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয় ‘মায়া ট্রাভেলস’ নামে একটি বাস। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান অ্যাম্বুলেন্সের চালকসহ পাঁচজন। এক নারীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনিও মারা যান।”

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা তাদের উদ্ধার করেন।

ফায়ার সার্ভিসের বরিশাল বিভাগীয় উপ-পরিচালক এবিএম মমতাজ উদ্দিন বলেন, দুই যানের সংঘর্ষে অ্যাম্বুলেন্সটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। এতে মরদেহগুলো অ্যাম্বুলেন্সের ভেতরে আটকা পড়ে। ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা গাড়ি কেটে লাশ উদ্ধার করে।

দুর্ঘটনার পরপরই কভার্ড ভ্যান ও বাসের চালক ও সহকারীরা পালিয়ে গেছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে।



মন্তব্য চালু নেই