মেইন ম্যেনু

শ্যামলীতে ইন্টারভিউ বোর্ডে অজ্ঞান করে তরুণীকে ধর্ষণ!

রাজধানীর শ্যামলীতে চাকরির ইন্টারভিউ দিতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক তরুণী। বুধবার দুপুরে শ্যামলীর ৩ নম্বর সড়কের একটি অফিসে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, চাকরির সাক্ষাৎকার দিতে গেলে ওই তরুণীকে কোকের সঙ্গে ঘুমের বা নেশাজাতীয় ওষুধ মিশিয়ে খাইয়ে অজ্ঞান করা হয়। এরপর ৩-৪ জন মিলে ওই তরুণীকে ধর্ষণ করে।

এ ঘটনার পর এদিন রাত সোয়া ১টায় ওই তরুণীর কাছ থেকে অভিযোগ পেয়ে তাকে নিয়ে শ্যামলীর ওই অফিসটিতে অভিযানে যায় পুলিশ।

শেরেবাংলা নগর থানার এসআই তৌহিদুল বলেন, মেয়েটি থানায় এসে দাবি করে সাক্ষাৎকারের সময় তাকে কোকের সঙ্গে ঘুমের বা নেশাজাতীয় কোনো ওষুধ খাইয়ে ৩-৪ জন ধর্ষণ করেছে। মেয়েটি প্রতিষ্ঠানের নাম বলতে পারেনি কিন্তু সে বাড়িটি চেনে।

শেরেবাংলা নগর থানার ডিউটি অফিসার রেজাউল জানান, ওই তরুণী শান্তা মারিয়াম নামে একটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পড়ছে বলে জানিয়েছে। তার সঙ্গে তার বন্ধুরাও থানায় এসেছে। তারা সবাই এখন পুলিশের সঙ্গে ওই ভবনে গেছে।

সর্বশেষ রাত দেড়টায় ঘটনাস্থল থেকে এসআই তৌহিদুল বলেন, আমরা মেয়েকে নিয়ে ওই ভবনের অফিসটিতে এসেছি। এখানে একজনকে পেয়েছি। তার সঙ্গে কথা বলছি আমরা। ভবনে কোনো অফিসের সাইনবোর্ড নেই। তাই প্রতিষ্ঠানটির নাম আপাতত বলা যাচ্ছে না।



মন্তব্য চালু নেই