শিরোনাম:

সাতক্ষীরার সালমান পানিতে ১ ঘণ্টা ডুবে থেকে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে

সাতক্ষীরার সালমান পানিতে ১ ঘণ্টা ২ মিনিট ডুবে থেকে এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছেন।

জানাযায়, সাতক্ষীরা সদরের বৈকারী ইউনিয়নের রফিকুল ইসলামের ছেলে সালমান ফারসি।

সে সাতক্ষীরা সরকারী কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের ১ম বর্ষের ছাত্র । সালমান ১ ঘণ্টা ২ মিনিট পানিতে কোনো প্রকার প্রযুক্তির ব্যবহার ছাড়ায় ডুবে থেকে বিরল কৃতিত্বের প্রমাণ দেখিয়েছেন।

গত শুক্রবার তার এলাকার শত শত মানুষের সামনে পুকুরে ১ ঘণ্টা ২ মিনিট ডুবে সে এই কৃতিত্ব দিখেয়েছেন। এ বিষয়ে নাজমুজ্জামান শান্ত নামে তার এলাকার এক ব্যক্তির সাথে কথা বললে তিনি বলেন, সালমান কিছুদিন আগে আমাকে বলছিল যে, সে ১ ঘণ্টা পানির নিচে থাকতে পারে । আমরা এ কথাটি শুনে অবিশ্বাস্য মনে হয়েছিল। তাকে বললাম আমাদের সামনে যদি প্রমাণ দিতে পার তাহলে আমরা বিশ্বাস করব। সে বলল আমি যে কোনো সময় প্রস্তুত। আর সে কারণেই আমি ফেসবুকে বিষয়টি লাইভ করি। সেখানে সে এক ঘন্টা ১ ঘণ্টা ২ মিনিট ধরে পানির নিচে ডুব দিয়ে ছিল যা দেখে আমরা অনেকটায় হতভম্ব হয়ে গিয়েছিলাম। আমরা ধারণা করছিলাম সে হইতো অসুস্থ হয়ে যাবে। পানি থেকে ডুব দিয়ে উঠার পরে আমরা দেখি সে আগের মত তাজা অবস্থায় উঠেছিল।

এ ব্যাপারে সালমান ফারসির সাথে বিস্তারিত জানতে চাইলে তিনি বলেন, এটা সৃষ্টিকর্তার একটা দান। আমি প্রথমে অল্প সময় করে পানির নিচে থাকতে শুরু করেছিলাম আর এখন দীর্ঘক্ষণ থাকতে পারি। সে কোনো প্রযুক্তি কিংবা যন্ত্রের সাহায্য নেয় কিনা জানতে চাইলে বলেন, আমি শুধুমাত্র একটা বাস ধরে অথবা কেউ যদি আমাকে চেপে ধরে রাখতে পারে তাহলে চলবে। কারণ আমি যদি কিছু ধরে না রাখি তাহলে বারবার ভেসে উঠব। এই জন্য আমাকে কিছু ধরে রাখতে হয়। এই ছাড়া আমি আর কোনো কিছু ব্যবহার করি না। ভবিষ্যৎ লক্ষ্য উদ্দেশ্য সম্পর্কে জানকে চাইলে সালমান বলেন, আমি দীর্ঘক্ষণ পানিতে ডুবে থাকার মাধ্যমে আমার নাম গিনেজ ওয়ার্ল্ড বুকে উঠাতে চাই। এই জন্য আপনাদের দোয়া ও সহযোগিতা চাচ্ছি।