শিরোনাম:

সোনিয়ার সঙ্গে সাক্ষাৎ নিয়ে মমতার মন্তব্যে তোলপাড়

দিল্লি সফরে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে বৈঠক করলেও কংগ্রেস প্রধান সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করেননি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এটি তার সাংবিধানিক দায়িত্ব নয় বলে জানিয়েছেন তিনি।

হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, বুধবার বিকালে প্রধানমন্ত্রীর দফতরে নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে বৈঠক করেন তৃণমূল প্রধান। এর আগে বিজেপির বিতর্কিত সংসদ সদস্য সুব্রহ্মণ্যম স্বামীর সঙ্গেও বৈঠক করেন মমতা।

কংগ্রেস সভানেত্রীর সঙ্গে কেন দেখা করছেন না পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী?‌ জবাবে তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন, এটা সাংবিধানিকভাবে বাধ্যতামূলক নয়।

মমতা স্পষ্ট ভাষায় বলেন, আমি শুধুমাত্র সময় নিয়ে এবার এসেছি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে। পাঞ্জাব নির্বাচনের জন্য সব নেতারা ব্যস্ত। কাজটা আগে। কেন প্রত্যেকবার সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করতে হবে?‌ এটা কখনই সাংবিধানিকভাবে বাধ্যতামূলক নয়।

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর এই মন্তব্যে ভারতের জাতীয় রাজনীতিতে তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে। নানা জল্পনা, গুঞ্জন শুরু হয়েছে।

ইতোমধ্যেই মেঘালয়ের সাবেক কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রী মুকুল সাংমাসহ ১২জন বিধায়ক তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিয়েছেন। তারপরেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই মন্তব্য কংগ্রেস–তৃণমূল জোট নিয়ে সংশয় তৈরি করল বলে মনে করা হচ্ছে।