প্রধান ম্যেনু

৯০ জনকে ১০৩ টাকায় পুলিশে চাকুরি দিলেন ফেনীর এসপি

‘নিয়োগ প্রক্রিয়া হবে অত্যন্ত স্বচ্ছ। ব্যাংক ড্রাফট এর মাধ্যমে আবেদন করবে, তারপর ডিজিটাল ফিটনেস পরীক্ষা হবে। যথারীতি লিখিত পরীক্ষায় পাশ করলে মৌখিক পরীক্ষায় ডাকা হবে।

এক্ষেত্রে কেউ টাকা-পয়সা চাইলে আপনাদের (সাংবাদিক) মাধ্যমে জানাতে বলবেন। প্রমাণ পেলে মামলা নিয়ে সঙ্গে সঙ্গে তাকে জেলে পাঠানো হবে। এক সেকেন্ডও বিলম্ব করা হবেনা।’

ফেনীতে যোগদানের পরই মতবিনিময় সভায় নবাগত পুলিশ সুপার খোন্দকার নুরুন্নবী এমন প্রত্যাশা করে সাংবাকিদের সহযোগিতা চেয়েছিলেন। সেই অনুযায়ী ১০৩ টাকায় ফেনী জেলা পুলিশে চাকুরি পেয়েছেন ৯০ জন।

নানা প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে আগামী রোববার নিয়োগ পরীক্ষার ফল ঘোষণা করা হয়।

জেলা পুলিশ সূত্র জানায়, বাংলাদেশ পুলিশের ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল পদে নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে চুড়ান্ত ভাবে উত্তীর্ন ৯০ জনের নাম রবিবার রাত ১টার দিকে জেলা পুলিশ লাইনে ঘোষণা করা হয়।

চুড়ান্তভাবে উত্তীর্ণরা প্রথমে শারীরিক, পরে লিখিত ও সর্বশেষ মৌখিক পরীক্ষায় পাশ করে। ব্যাংক চালানের মাধ্যমে ১শ টাকা ফি ও ফরম বাবত ৩ টাকা খরচ করতে হয়েছে।

চুড়ান্ত ভাবে উত্তীর্ন সোনাগাজী উপজেলার আব্দুরফ কাদের জানান, এবার পুলিশে নিয়োগ পরীক্ষায় উত্তীর্ন হতে আমার কাউকে টাকা দিতে হয়নি, স্বচ্ছতার সাথে এবার নিয়োগ হয়েছে বলে তার মত।

এ ব্যাপারে পুলিশ সুপার খোন্দকার নুরুন্নবী জানান, এবার প্রকৃত যোগ্যরা পুলিশে নিয়োগ পেয়েছে। নিয়োগ পরীক্ষা নিয়ে কোনরকম আর্থিক লেনদেন হয়নি। আমাদের আইজি স্যারের কড়া নির্দেশনা থাকায় আমার কাজ করতে সুবিধা হয়েছে। ফলে সাধারণ পরিবারের সন্তানরা চাকুরি পেয়েছে।



মন্তব্য চালু নেই