মেইন ম্যেনু

তুমব্রু সীমান্তে বিজিপির গুলি, আতঙ্কে রোহিঙ্গারা

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তুমব্রু সীমান্তের নো ম্যান্স ল্যান্ডে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) শতাধিক রাউন্ড ফাঁকা গুলিবর্ষণ করেছে।

মঙ্গলবার ভোর সাড়ে ৩টা থেকে ৪টা পর্যন্ত থেমে থেমে সীমান্তের কয়েকটি পোস্ট থেকে তারা এই গুলি চালায়।

এতে তুমব্রু সীমান্তের নো ম্যান্স ল্যান্ডে অবস্থানকারী মুসলিম রোহিঙ্গাদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় অনেকে বাংলাদেশের ভুখণ্ডেও চলে আসেন।

তবে, কি কারণে বিজিপি রোহিঙ্গা শিবিরের কাছে এভাবে গুলিবর্ষণ করেছে, তা এখনো জানা যায়নি।

অবশ্য বাড়তি সতর্কতা হিসেবে সীমান্তে বাংলাদেশের সীমান্ত বাহিনী বিজিবি টহল জোরদার করেছে।

ঘুনধুম ইউনিয়নের ইউপি সদস্য দিল মোহাম্মদ ভুট্টো ও আবদুল গফুর জানান, ভোরে সীমান্তের নো ম্যান্স ল্যান্ড এলাকায় বিজিপি কয়েকটি অস্থায়ী পোস্ট ও ক্যাম্প থেকে শতাধিক রাউন্ড ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে। এতে সীমান্তের স্থানীয় বাসিন্দা ও রোহিঙ্গাদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

তবে, এ বিষয়ে বিজিবির সঙ্গে যোগাযোগ করেও কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

রাখাইনে ২০১৭ সালের আগস্টে সংখ্যালঘু মুসলিম রোহিঙ্গাদের ওপর মিয়ানমারের সেনাবাহিনী জাতিগত নিধন চালায়। সে সময়ে প্রাণ বাঁচাতে ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়।

এদের মধ্যে প্রায় ৫ হাজার রোহিঙ্গা বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তুমব্রু সীমান্তের নো ম্যান্স ল্যান্ডে অবস্থান নেন। সেখানেই তাদের খাদ্য ও চিকিৎসা সহায়তা দিচ্ছে রেডক্রস।



মন্তব্য চালু নেই